মাত্র ১ সাপ্তাহে ব্রণের দাগ ও গর্ত দূর করার সহজ উপায় | 100 % কার্যকরী

ব্রণের সমস্যায় অনেক নারী-পুরুষই ভোগেন। বিশেষ করে কিশোর-কিশোরীদের ক্ষেত্রে ব্রণের সমস্যা বেশি দেখা দেয়। অনেকের মুখেই অতিরিক্ত ব্রণ হওয়ার ফলে কালো দাগ পড়ে যায়।

আবার কখনও কখনও ব্রণ সেরে গেলেও মুখের ওই স্থানগুলো গর্ত হয়ে যায়। এতে মুখের সৌন্দর্য অনেকটাই কমে যায়। নিশ্চয়ই ব্রণের দাগ দূর করতে বিভিন্ন উপায় অনুসরণ করেছেন, তবুও ফলাফল শূন্য!

বাজারে এখন বাহারি মোড়কে ব্রণের দাগ সারানোর ক্রিম, সিরাম, ফেসপ্যাক পাওয়া যায়। তবে এসব প্রসাধনীতে থাকতে পারে কেমিক্যাল।

এসবের বদলে ভরসা রাখুন প্রাকৃতিক উপায়ে। জেনে নিন খুব সহজে ও কার্যকরী উপায়ে কীভাবে ব্রণের দাগ দূর করবেন-

>> প্রাকৃতিক ব্লিচ উপাদান আছে লেবুতে। লেবুর রসের সঙ্গে সামান্য পানি বা গোলাপজল মিশিয়ে এতে তুলো ভিজিয়ে ব্রণের দাগের ওপর লাগিয়ে ১৫ মিনিট রেখে দিন। এরপর কুসুম গরম পানিতে মুখ ধুয়ে ফেলুন। নিয়মিত লেবুর রস ব্যবহারে দ্রুত দাগ কমবে।

>> শসার রস ব্রণের দাগ দূর করতে দারুণ কাজ করে। এজন্য সমপরিমাণ শসা ও টেমেটোর রস মিশিয়ে ব্রণের দাগে ব্যবহার করে ১০ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে তিনদিন এই প্যাক ব্যবহারে ব্রণের দাগসহ রোদে পোড়া দাগও মিটে যাবে।

>> অ্যালোভেরার জেল দিয়েও ব্রণের জেদি দাগ দূর করতে পারবেন। এজন্য সকালে ও রাতে জেল মুখে লাগিয়ে শুকিয়ে গেলে ধুয়ে ফেলবেন। ধীরে ধীরে দাগ চলে যাবে।

>> প্রাকৃতিক ব্লিচের আরেকটি উৎস হলো বেকিং সোডা। ব্রণের দাগ দূর করতে ২ টেবিল চামচ বেকিং সোডার সঙ্গে অল্প একটু পানি মিশিয়ে দাগের জায়গায় ২-৩ মিনিট লাগিয়ে শুকিয়ে ধুয়ে ফেলুন। দ্রুত ব্রণের দাগ দূর হবে।

> আয়ুর্বেদিক গুণসমৃদ্ধ তুলসির পাতা ত্বকের যত্নে অপরিসীম। ব্রণের দাগ সারাতে তুলসির রস দুর্দান্ত উপকারী। নিয়মিত এই পাতার রস ব্যবহারে দ্রুত দাগ দূর হবে।

 

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*